Breaking News
Home / লাইফস্টাইল / ঘরে যতো মশাই থাকুক না কেন ১ বার জ্বালালে সব মশা দৌড়ে পালাবে।মশা দূর করার ঘরোয়া উপায়

ঘরে যতো মশাই থাকুক না কেন ১ বার জ্বালালে সব মশা দৌড়ে পালাবে।মশা দূর করার ঘরোয়া উপায়

মশা এমন একটি প্রাণী যার উপস্থিতি আমাদের জীবনকে নাজেহাল করে দেয় মশার কারণে দেখা দিতে পারে নানা রকমের অসুখ-বিসুখ । মশা নিয়ে আসে নানা রকমের ব্যাকটেরিয়া জীবাণু ।তার সাথে সাথে মশা এমন অনেক প্রজাতি আছে যা মানুষের মৃত্যুর কারণ হয়ে যায় ।

ঐসকল ক্ষতিকর প্রজাতির মশার দ্বারা মানুষের অনেক ক্ষতি সাধন হয়। ওই জাতির মশার আক্রমণের ফলে হয়ে যায় মানুষের অকাল মৃত্যু।

মশার থেকে আমরা সবাই নিস্তার পেতে চাই। কিন্তু মশা ছাড়া আমাদের দৈনন্দিন জীবন যেন চলেই না। তার কাছে যত দূরে সরতে চাই সে যেন আরো ওত পেতে থাকে আমাদের কাছের আসার জন্য।

মশা এমন একটি প্রাণী যার বিস্তার ঠেকানো সম্ভব না। কিন্তু কিছুটা হলেও এর বিস্তার রোধ করা যাবে। কিছুটা হলেও এর থেকে মুক্তি পাওয়ার ফর্মুলা রয়েছে ।এ ফর্মুলা গুলো ব্যবহার করলে মশা থেকে কিছুটা হলেও নিস্তার পাওয়া যাবে ।এই ফর্মুলাটি ব্যবহার হলে মশা দৌড়ে পালাবে। আমাদের ঘরে দেখা যাবে না এই মশাকে।

সন্ধ্যা হলে যেন আমাদের ঘর বাড়ি মশা দিয়ে আচ্ছন্ন হয়ে পড়ে। এই মশা থেকে রক্ষা পাওয়ার জন্য আমাদের কিছু ফর্মুলা মেনে চলতে হবে ।যে ফর্মুলা গুলো মেনে চললে আমাদের ঘর বাড়ি মশা মুক্ত থাকবে। আর আমরা বাড়ি বেঁচে যাব নানারকম অসুখ-বিসুখ থেকে। চলুন জেনে নেই কিভাবে এই ফর্মুলাটি তৈরি করতে হবে।

ফর্মুলাটি তৈরিকরণঃ এজন্য প্রথমে নিয়ে নিতে হবে আমাদের একটি বাটি। তার সাথে নিয়ে নিতে হবে একটি রসুন। রসুন যেভাবে আমাদের রান্নার জন্য দরকারি তেমনি আমাদের শরীরের জন্য উপকারী। তিন থেকে চারটি রসুনের পিস নিয়ে রসুনের পেস্ট করে নিতে হবে।

পেস্ট করা রসুন গুলোকে একটি মাটির বাটিতে নিতে হবে এরপর এর মধ্যে নিতে হবে একটি তেজপাতা। তেজপাতার পাতাটি কেও ছোট ছোট করে কেটে নিতে হবে। কেটে নেওয়ার কাজ শেষ হয়ে গেলে কাঁটা তেজপাতা গুলো মাটির সে বাটিতে দিতে হবে। এরপর সেখান দিয়ে দিতে হবে কর্পূর গুঁড়ো।

কর্পূর কে ভালোভাবে গুঁড়ো করে দিয়ে দিতে হবে সে মাটির বাটিতে। এরপর এর মধ্যে দিয়ে দিতে হবে দেশি ঘি। ঘি দেওয়া হয়ে গেলে একসাথে করে এগুলোকে নেড়ে নিতে হবে। আপনি চাইলে এগুলোকে হাত বা চামচ দিয়ে নেড়ে নিতে পারেন। মিশানো হয়ে গেলে একটি বিয়ার সাহায্যে উপাদান থেকে আগুন দিয়ে জ্বালানোর চেষ্টা করুন।

চেষ্টা করবেন ঘরের এক কোনায় এ কাজটি করার ।আগুন জালানো শেষ হয়ে গেলে মিশ্রনটিকে ১০ থেকে ১৫ মিনিট এভাবে রেখে দিন । মিশ্রণটির ধোয়াতে আপনার ঘরে একটি মশাও থাকতে পারবেনা। সব মশা এই ধোয়ার গন্ধে গন্ধে পালিয়ে যাবে।
আশা করি এই ফর্মুলাটি ব্যবহার করে আপনাদের ঘরে একটি মশা থাকবে না। মশাগুলো আপনার ঘর ছেড়ে পালাবে । ক্ষতিকর মশাগুলো আসতে পারবেনা ।আপনার ঘরে আর এসে থাকলেও এই মিশ্রণটি ধোঁয়ায় পালিয়ে যাবে ।আপনার স্বাস্থ্য সুরক্ষা রাখবে এবং আপনাকে সুরক্ষা রাখবে ডেঙ্গু ম্যালেরিয়া মত মরণঘাতী থেকে।

About admin

Check Also

১ লক্ষ টাকা জমা করলেই নগদ দিচ্ছে ৫ লক্ষ টাকা- সোনালী ব্যাংক!

এবার অভিনব একটি স্কিম নিয়ে এসেছে সোনালী ব্যাংক। এই স্কিমে টাকা জমা রাখলেও পাওয়া যাবে …

Leave a Reply

Your email address will not be published.