দাউদ রোগের ঘরোয়া চিকিৎসা

দাউদ এক ধরনের চর্মরোগ। সাধারণত শরীরের এক জায়গায় গোল চাকতির মতো ফুসকুড়ি উঠে চুলকানি হয়। শরীরের বিভিন্ন জায়গায় দাউদ হতে পারে। প্রথমে সামান্য হয় এরপর সেখান থেকে বাড়তে থাকে।

চামড়ার যে অংশ সাধারনত উষ্ণ এবং আর্দ্র থাকে সেখানেই দাউদের সংক্রমণ হয়। যেমন- পায়ের পাতার চামড়ার ভাজে, কুচকিতে, মাথার তালুতে, আঙুলে ইত্যাদি। দাউদ থেকে মুক্তি পেতে পারেন ঘরোয়া উপায়ে। চলুন তবে জেনে নেয়া যাক দাউদের ঘরোয়া চিকিৎসা সম্পর্কে-

পেঁপে
রিংওয়ার্ম বা দাউদের প্রকোপ কমাতে নিয়মিত পেঁপেকে কাজে লাগাতে পারেন। আসলে এই ফলে উপস্থিত অ্যান্টি-ফাঙ্গাল উপাদানসমূহ বিশেষ ভূমিকা পালন করে থাকে। এক্ষেত্রে ছোট একটি পেঁপের টুকরো দাউদের উপর লাগিয়ে নিন। তারপর ১৫ মিনিট পর গরম পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।

নিম পাতা
এই পাতায় উপস্থিত অ্যান্টিসেপটিক এবং অ্যান্টিমাইক্রোবিয়াল উপাদানসমূহ দাউদের মতো ত্বকের চর্মরোগের প্রকোপ কমাতে বিশেষ ভূমিকা রাখে। এক্ষেত্রে অল্প পরিমাণ নিম তেল নিয়ে দাউদের উপর লাগান। তাহলে দেখবেন দাউদের সমস্য়া খুব দ্রুত সেরে যাবে। নিম তেলের সঙ্গে অ্যালোভেরা জেল মিশিয়েও লাগালে কিন্তু এক্ষেত্রে দারুন উপকার পাওয়া যায়।

হলুদ
এতে রয়েছে বিপুল মাত্রায় অ্যান্টি-ব্যাকটেরিয়ার উপাদানসমূহ। যা এই ধরনের সংক্রমণের প্রকোপ কমাতে দারুন কাজে আসে। এক্ষেত্রে প্রথমে অল্প করে হলুদ পানিতে মিশিয়ে নিন। তারপর সেই পানিতে তুলা ভিজিয়ে দাউদের উপর লাগান। তাহলে দেখবেন দাউদের সমস্য়া খুব দ্রুত সেরে যাবে। এটি দিনে কম করে তিনবার এমনটা করলে রোগ সেরে যেতে শুরু করবে দেখবেন।

রসুন
এতে রয়েছে অ্যাজুইনা নামে এক ধরনের প্রাকৃতিক অ্যান্টি-ফাঙ্গাল উপাদান। যা যেকোনো ধরনের ফাঙ্গাল ইনফেকশন কমাতে দারুন কাজে লাগে। এক্ষেত্রে অল্প করে রসুনের কোয়া নিয়ে সেগুলোকে ছোট ছোট করে কেটে নিন। তারপর সেগুলোকে দাউদের উপর রেখে বেঁধে দিন। এমনটা সারা রাত রাখলেই খুব দ্রুত ফল পাবেন। রসুনের কোয়ার পেস্ট বানিয়ে ক্ষত স্থানে লাগালেও সমান উপকার পাওয়া যায়।

অ্যালোভেরা
ত্বকের সৌন্দর্য বৃদ্ধিতে শুধু নয়, ফাঙ্গাল ইনফেকশনের প্রকোপ কমাতেও এই প্রাকৃতিক উপাদানটি দারুন কাজে আসে। এক্ষেত্রে রাতে শুতে যাওয়ার আগে অ্যালোভেরা পাতা থেকে পরিমাণ মতো জেল সংগ্রহ করে দাউদের উপর সরাসরি লাগাতে হবে। সারা রাত রেখে পরদিন সকালে ধুয়ে ফেলুন। এভাবে প্রতিদিন এই ঘরোয়া চিকিৎসাটি করলে অল্প দিনেই দেখবেন দাউদ সেরে যাবে।

নারকেল তেল
এই প্রাকৃতিক তেলটিও দাউদের প্রকোপ কমাতে দারুন উপকারে আসে। এই তেলটিতে এমন কিছু উপাদান রয়েছে, যা দাউদের মতো ত্বকের বিভিন্ন সমস্যা সারাতে বিশেষ ভূমিকা পালন করে। এক্ষেত্রে রাতে শুতে যাওয়ার আগে যে জায়গায় দাউদ হয়েছে সেখানে অল্প করে নারকেল তেল লাগিয়ে শুয়ে পরুন। সকালে উঠে ধুয়ে ফেলুন। কয়েকদিন এমন করলেই খুব দ্রুত দাউদ সেরে যাবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *